FANDOM


প্রথম সার্মনটা আসলেই খুব ভাল লেগেছে। সিনেমার মূল থিমটা এতে উঠে এসেছে এবং এ কারণেই আপনার কথা ঠিক: পুরো সিনেমাকেই একটা সার্মন মনে হয়। আমি এক কাজ করি, প্রথম সার্মনটা বঙ্গানুবাদ করে দিয়ে দেই:

প্রথম সার্মনEdit

আজ আমি একটা গল্প বলব। এক রাতে গভীর সমুদ্রের একটি মালবাহী জাহাজে আগুন ধরে গেল, স্বভাবতই জাহাজটি গেল ডুবে। কেবল একজন নাবিক সে যাত্রা বেঁচে গেল। সে আসলে একটা লাইফবোট পেয়েছিল, সাথে ছিল একটা ছেঁড়া পাল। লাইফবোটের সাথে ছেঁড়া পাল জুড়ে দিয়ে সে নেভিগেশনের নিয়মকানুন অনুসরণ করল। নিয়ম অনুসারে স্বর্গের দিকে চোখ ফেরাল, অনুসরণ করল তারাগুলোকে। তার বাড়ির দিকে লাইফবোটের দিক ঠিক করার পর বিধ্বস্ত নাবিক ঘুমিয়ে পড়ল। এর মধ্যেই আকাশ মেঘাচ্ছন্ন হয়ে পড়ল। যার ফলে পরবর্তী ২০ রাতে আকাশের একটি তারাও দেখা গেল না। সে জানত, প্রথমে তার দিকনির্ণয় ঠিক ছিল, কিন্তু বর্তমানে দিক সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়ার কোন উপায় নেই। দিন যেতে লাগল আর নাবিকের মনে পুঞ্জীভূত হতে থাকল প্রগাঢ় সন্দেহ। তার দিকনির্ণয় কি ঠিক ছিল? সে কি এখনও তার বাড়ির দিকেই যাচ্ছে? নাকি সম্পূর্ণ দিকভ্রান্ত হয়ে মৃত্যুর দিকে এগিয়ে চলেছে? জানার কোন উপায় নেই। তারা থেকে কি আসলেই কোন বার্তা এসেছিল, নাকি প্রচণ্ড বেপরোয়া থাকায় সে তখন এটা কল্পনা করে নিয়েছিল? নাকি একবার সত্যকে জানতে পেরে সেটাই সে আঁকড়ে ধরে আছে, পুনরায় প্রমাণ করার প্রয়োজন অনুভব করছে না? আমি এখানে বিশ্বাসের যে সংকট বর্ণনা করলাম তার সাথে আপনারা সবাই পরিচিত। আমি কেবল আপনাদের বলতে চাই: নিশ্চয়তা যেমন গভীর বন্ধন হিসেবে কাজ করতে পারে ঠিক তেমনি সন্দেহও গভীর বন্ধন হিসেবে কাজ করতে পারে। হারিয়ে গেলেও মানুষ একা হয়ে যায় না, কারণ তার মত আরও অনেকেই তো হারিয়ে গেছে।

শেষ সার্মনEdit

এটাকে আসলে সার্মন বলা যায় না। সার্মন দিতে গিয়ে আসলে ফাদার বিদায় নিয়েছেন। এটার আর অনুবাদ করলাম না: I never like to say goodbye. But there is a wind behind every one of us that takes us through our lives. We never see it, we can’t command it, we don’t even know its purpose. I would have stayed among you longer, but that wind is taking me away. I will miss it here. And I will miss you. But I’m content that the power that propels me does so with superior knowledge as to what is for the best, and that is my faith.

বালিশ কাটার পর ছড়িয়ে পরা পালকের উপমাটাও বেশ ভাল লেগেছে। সিনেমা সন্দেহ নিয়ে, এদিক দিয়ে চিন্তা করলে এর খুব বেশী সীমাবদ্ধতা ছিল না। আরও যেসব থিম এসেছে সেগুলো তো এহসান ভাই বলেই দিয়েছেন।

অভিনয় অসাধারণ হয়েছে। মেরিল স্ট্রিপের খুব বেশী সিনেমা দেখিনি, ৬-৭ টা হবে। প্রতিটা দেখেই মুগ্ধ হয়েছি। একসময় হয়ত সর্বকালের সেরা অভিনেত্রী হিসেবে মানুষ মেরিল স্ট্রিপেরই নাম করবে।

Community content is available under CC-BY-SA unless otherwise noted.